যুক্তরাষ্ট্র চায়নার সম্পর্ক নতুন স্নায়ুযুদ্ধের দিকে যাচ্ছে : চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কিছু রাজনৈতিক শক্তি চীন-আমেরিকার সম্পর্ককে জিম্মি করছে এবং এই দুই দেশকে নতুন স্নায়ুযুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে যাচ্ছে। বিষয়টি আমাদের মনোযোগ আকৃষ্ট করেছে। বললেন চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই।

রোববার (২৪ মে) করোনাভাইরাস সংকট ও হংকংয়ে নতুন আইন পাসসহ কয়েকটি ইস্যুতে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

ওয়াশিংটন পোস্ট জানায় চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, নতুন করোনাভাইরাসের মতো আরও একটি রাজনৈতিক ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। চীনকে যে কোনও উপায়ে চীনকে আক্রমণ করা এবং চীনকে কলঙ্কের ভাগীদার করাই হলো এই ভাইরাসের কাজ। কিছু রাজনীতিবিদ সঠিক তথ্য না খুঁজে এবং অগ্রাহ্য করে বানানো তথ্যের ভিত্তিতে চীনের বিরুদ্ধে মিথ্যা ছড়াচ্ছে।

বর্তমানে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মাঝে কূটনৈতিক সম্পর্ক বেশ তিক্ততার মাঝেই যাচ্ছে। বাণিজ্য, মানবাধিকার ও অন্যান্য ইস্যুতে দুই দেশের মতানৈক্য তীব্র আকার ধারণ করেছে। সেই সঙ্গে যোগ হয়েছে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রায়ই অভিযোগ করছেন করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার পেছনে চীনের হাত রয়েছে।

আবার অন্যদিকে অস্থিতিশীল হয়ে উঠেছে বিশ্ববাণিজ্যের অন্যতম প্রধান কেন্দ্র হংকং। আধা স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলটিতে চীন নতুন জাতীয় নিরাপত্তা আইন জারির প্রক্রিয়া শুরু করেছে। আর তাতেই ফুঁসে উঠেছেন হংকংয়ের গণতন্ত্রপন্থীরা। এই আইনের প্রতিবাদে বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে হংকং এর জনগণ।