নেত্রকোণায় দায়রা জজ ও ম্যাজিষ্টেট সহ আরো ২২ জন করোনায় আক্রান্ত

জাহাঙ্গীর আলম, নেত্রকোণা প্রতিনিধিঃ নেত্রকোণা জেলায় দায়রা জজ ম্যাজিষ্ট্রেট ও সোনালী ব্যাংকের কর্মকর্তা সহ আরো ২২ জনের শরীরে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে নেত্রকোণা জেলায় সর্বোমোট ১৯৯ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে।

আজ (২২মে) রাতে জেলা সিভিল সার্জন তাজুল ইসলাম এই তথ্য নিশ্চিত করেন। কেন্দুয়া উপজেলায়- ১১জন, সোনালী ব্যাংকের কর্মকর্তা ৪ জন, রুপালী ব্যাংকের কর্মকর্তা ১জন, হাসপাতালের অফিস সহায়ক-১জন, আরামবাগ-১জন, ফেমই-১জন, বাট্টা-১জন, বৈখেরহাটি-১জন, রামনগর, দলপা-১জন। পূর্বধলা উপজেলায় ফিসারী অফিসার ০১জন। নেত্রকোণা সদর উপজেলায় ৪ জন। জেলা ও দায়রা জজ ১ জন, এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্টেট ১জন, নেত্রকোণা জেলা কারাগারের গাড়ীচালক-১জন, সদর হাসপাতালের ষ্টাফ-১জন, মদন উপজেলায়-৪ জন সোনালী ব্যাংকের কর্মকর্তা ৩ জন, হাসপাতালের প্রধান সহকারী-১জন, মোহনগঞ্জ উপজেলায়-২জন, হাসপাতালের মেডিকেল (টেকঃ) ল্যাব -১জন। স্বাস্থ্য কর্মীর পরিবারের সদস্য-১জন।

এনিয়ে নেত্রকোণা জেলায় সর্বমোট ১৯৯ জন করোনা শনাক্ত হয়েছে। আজ পর্যন্ত পরীক্ষাগারে প্রেরিত নমুনার সংখ্যা ২৮৫৪টি, এ পর্যন্ত ২৭৮৪টির রির্পোট পাওয়া গেছে।

আজ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৪৮জন। আজ পর্যন্ত মৃত্যু- ০২জন।

ঘরে থাকুন,নিরাপদ থাকুন: সিভিল সার্জন নেত্রকোণা।