দু’সপ্তাহের ব্যবধানে চালের দাম বেড়েছে কেজিতে ৭ টাকা

দু’সপ্তাহের ব্যবধানে বাজারে চালের দাম জাত ভেদে কেজিপ্রতি সর্বোচ্চ ৭ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে। আর সাধারণ মানুষের মোটা চালের দাম কেজিতে বেড়েছে তিন টাকা। দাম বাড়ার জন্য আড়ৎদাররা দায়ী করছেন মিল মালিকদের। ইরি মওসুম শেষ হওয়ায় বাড়তি দামে মিল থেকে চাল কিনতে হচ্ছে বলে জানান তারা।
চালের বাজার আবারো অস্থির। ঢাকাসহ সারাদেশের বাজারে সরু ও মোটা সব ধরনের চালের দাম বেড়েছে। সাধারণ মানুষের খাবার বিভিন্ন জাতের যে মোটা চাল দু’সপ্তাহ আগেও ৩২ টাকায় বিক্রি হয়েছে, এখন তা ৩৫ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।
বেড়েছে সরু চালের দামও। মিনিকেট চাল খুচরা বাজারে বিক্রি হচ্ছে ৫২ থেকে ৬০ টাকা কেজি, যা কয়েকদিন আগে ছিলো ৪৭ থেকে ৫৩ টাকা। নাজির শাইল ৫ টাকা বেড়ে প্রকারভেদে ৬০ থেকে ৬৫, আটাশ চাল ৩ থেকে ৪ টাকা বেড়ে ৪৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। স্বর্ণা পাইজাম কেজিতে ৩ টাকা বেড়ে ৩৮ টাকা, গুড়ি স্বর্ণা কেজিতে ২ টাকা বেড়ে বিক্রি হচ্ছে ৩২ থেকে ৩৪ টাকায়।
চালের দাম বাড়ায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে ক্রেতা ও খুচরা বিক্রেতাদের মধ্যে।
পাইকারি ব্যবসায়ী ও আড়ৎদারদের দাবি, ইরি মওসুম শেষের দিকে আসায় মিল মালিকরা দাম বাড়িয়ে দিয়েছেন। বৈশাখ মাসে নতুন ধান বাজারে এলে দাম কমবে বলেও জানান তারা।