উল্লাপাড়ায় ওয়াকি টকি দেওয়া হচ্ছে জনপ্রতিনিধিদের

আলমগীর হোসেন আলমঃ সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় নানা ধরনের দূর্যোগ মোকাবেলায়,উন্নয়ন কাজের তদারকি ও জনপ্রতিনিধিদের সাথে সার্বক্ষনিক বিভিন্ন বিষয়ে যোগাযোগ রক্ষায় ওয়াকি টকির ব্যবহারে সুফল পাচ্ছে উল্লাপড়া উপজেলাবাসী।

উল্লাপাড়া উপজেলা ত্রাণ ও দূর্যোগ অধিদপ্তরের অর্থায়নে উপজেলার জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসনের কর্মকর্তাদের জন্য ২১টি ওয়াকি টকির বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর মত বিশেষ এই ওয়াকি টকিতে উপজেলা প্রশাসন থেকে জনপ্রতিনিধিদের সার্বক্ষনিক জরুরী বার্তা দেয়া হচ্ছে।

প্রশাসন থেকে জরুরী বার্তা সহ তৃণমূল পর্যায়ে এই ওয়াকি টকির মাধ্যমে সকলের কাছে একযোগে বার্তা পৌছে দেয়া হচ্ছে। জনপ্রতিনিধিরা প্রশাসনের কাছে এই ওয়াকি টকির মাধ্যমে তাৎক্ষনিক স্থানীয় সমস্যা সহ জরুরী প্রয়োজনে যোগাযোগ রক্ষা করছেন।

জানা যায়,চলতি অর্থ বছরে উল্লাপাড়া উপজেলার সংসদ সদস্য,উপজেলা নির্বাহী অফিসার,উপজেলা চেয়ারম্যান,দুই ভাইস চেয়ারম্যান,প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকতা সহ ১৪ ইউপি চেয়ারম্যানের জন্য কেনা হয় বিশেষ এই ওয়াকি টকি।

বিটিআরসির অনুমতি নিয়ে কেনা এই ওয়াকি টকিতে এখন উপজেলা প্রশাসন থেকে সকল বার্তা জনপ্রতিনিধিদের কাছে পৌছে দেয়া হয়।

সম্প্রতি ছড়িয়ে পড়া করনা ভাইরাস প্রতিরোধে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের দিয়ে বাজারের দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ,গুজব প্রতিরোধে সচেতনতা বার্তা,সরকারি নানা বার্তা,উপজেলা পরিষদের জরুরী সভা-সমাবেশ,নানা উন্নয়ন কাজের তদারকি এখন এই ওয়াকি টকিতেই করা হচ্ছে।

জনপ্রতিনিধিরাও একে অপরের সাথে তাদের উন্নয়ন কর্ম পরিকল্পনা নিয়ে পরামর্শ করতে পারছেন।উল্লাপাড়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকতা মোঃ মাহবুবুর রহমান ভূঁইয়া জানান,উল্লাপাড়ার সংসদ তানভীর ইমামের অনুপ্রেরনায় ডিজিটাল উপজেলা গড়া সহ প্রশাসনের কাজে গতি বাড়াতে উপজেলা ত্রাণ ও দূর্যোগ অধিদপ্তরের অর্থায়নে এগুলো কেনা হয়েছে।

উন্নয়ন কাজের গতি বাড়া,করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বাজার তদারকি,সচেতনতা বৃদ্ধি,জনপ্রতিনিধিদের জরুরী বার্তা দেয়া সহ প্রতিটি কাজে আমরা এখন ওয়াকি টকির সুফল পাচ্ছি।